সাম্প্রতিক শিরোনাম

রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ২৪ ঘণ্টায় আরো ১৮ জনের মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গেল ২৪ ঘণ্টায় আরো ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৮ জুলাই) সকাল ৯টা থেকে শুক্রবার (৯ জুলাই) সকাল ৯টার মধ্যে মারা যান তারা।

শুক্রবার (৯ জুলাই) সকালে রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এর আগের দিনও ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছিল এই হাসপাতালে।

শামীম ইয়াজদানী বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় যে ১৮ জন মারা গেছেন, তাদের মধ্যে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে করোনায়। এ ছাড়া ১৫ জন করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন। মারা যাওয়া ১৮ জনের মধ্যে ১০ জনের বাড়ি রাজশাহী জেলায়।

এ ছাড়া নওগাঁর দুজন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের দুজন, নাটোরের দুজন, সিরাজগঞ্জের একজন এবং কুষ্টিয়ার একজন মারা গেছেন। করোনা সংক্রমণ ও উপসর্গ নিয়ে হাসপাতালে এসেছিলেন তারা।

রামেক হাসপাতাল পরিচালক জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ চারজন মারা গেছেন রামেক হাসপাতালের ১৪ নম্বর ওয়ার্ডে। এ ছাড়া নিবিড় পরিচর্যাকেন্দ্র (আইসিইউ) ও ২২ নম্বর ওয়ার্ডে তিনজন করে, ১৫ ও ২৫ নম্বর ওয়ার্ডে দুজন করে এবং ৩, ৪, ১৬ ও ২২/৩০ নম্বর ওয়ার্ডে একজন করে মারা গেছেন।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা সংক্রমণে মারা গেছেন রাজশাহীর দুজন ও নওগাঁর একজন। এ ছাড়া উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া ১৫ জনের মধ্যে রাজশাহীর ৮ জন, দুজন করে নাটোর ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের এবং একজন করে নওগাঁ, কুষ্টিয়া ও সিরাজগঞ্জের বাসিন্দা। স্বাস্থ্যবিধি মেনে তাদের মরদেহ দাফনের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

৪৫৪ শয্যার করোনা ইউনিটে শুক্রবার সকাল ৯টা পর্যন্ত রোগী ভর্তি রয়েছে ৫০১ জন। এর মধ্যে আইসিইউতে ভর্তি রয়েছে ২০ জন। করোনা নিয়ে এ পর্যন্ত ভর্তি রয়েছে ২০৬ জন। এ ছাড়া উপসর্গ নিয়ে ভর্তি রয়েছে ২৩১ জন। করোনা ধরা পড়েনি হাসপাতালে ভর্তি ৬৪ জনের নমুনায়। এ ছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে ৭৪ জন। এই এক দিনে হাসপাতাল ছেড়েছে ৫২ জন।

বৃহস্পতিবার (০৮ জুলাই) রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতাল ল্যাবে ২৮২ জনের এবং রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ পিসিআর ল্যাবে ২৮০ জনের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এর মধ্যে রামেক হাসপাতাল ল্যাবে ৩২ ও রামেক ল্যাবে ৭২ জনের নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়েছে। পরীক্ষার অনুপাতে রাজশাহীর ১৮ দশমিক ১৬ শতাংশ এবং চাঁপাইনবাবগঞ্জের ২০ দশমিক ৪৮ শতাংশ নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়েছে।

প্রসংগত গত ১ জুলাই ২২ জন, ২ জুলাই ১৭ জন, ৩ জুলাই ১৩ জন, ৪ জুলাই ১২ জন, ৫ জুলাই ১৮ জন, ৬ জুলাই ১৯ জন, ৭ জুলাই ২০ জন এবং ৮ জুলাই ১৮ জন প্রাণ হারিয়েছে রামেক হাসপাতালে। গত ২৯ জুন করোনা ইউনিটে সর্বোচ্চ ২৫ জন মারা যায়। করোনা সংক্রমণ শনাক্তের পর হাসপাতালে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড এটি।

গত বছরের এপ্রিল থেকে এই বছরের জুন পর্যন্ত রামেক হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে সাত হাজার ১৬১ জন রোগী। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়ে গেছে পাঁচ হাজার ৯২৭ জন। এই ১৪ মাসে মারা গেছে এক হাজার ৭৮ জন। এর মধ্যে করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৩৪৬ জনের। অন্যদের মৃত্যু হয়েছে উপসর্গ নয়তো অন্যান্য শারীরিক জটিলতায়।

সর্বশেষ

তিস্তা ব্যারেজের সব গেট খুলে দিল পানি উন্নয়ন বোর্ড

ঈশাত জামান মুন্না, লালমনিরহাট: ভারি বর্ষণ, উজানের ঢল ও ভারতের গজলডোবার সবগুলো গেট খুলে দেওয়ায় বাড়ছে তিস্তার পানি। এতে তিস্তা নদীর পানি বিপৎসীমার ৯০...

লালমনিরহাটের পাটগ্রামের দহগ্রামে অনুপ্রবেশের দায়ে আটক-২

ঈশাত জামান মুন্না, লালমনিরহাট: জেলার পাটগ্রামের দহগ্রামে অনুপ্রবেশের দায়ে দুইজনকে আটক করেছেন বডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদস্যরা।আজ শনিবার (২ অক্টোবর) সকালে পাটগ্রাম উপজেলার দহগ্রাম...

হাতিবান্ধায় নিজ বাড়ির সামনে কৃষককে কুপিয়ে হত্যা

ঈশাত জামান মুন্না, লালমনিরহাট: লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার দোয়ানী তিস্তা ব্যারাজ এলাকায় আব্দুল মালেক (৪২) নামে এক কৃষককে কুপিয়ে হত্যার খবর পাওয়া গেছে।রোববার (২৬ সেপ্টেম্বর)...

মালিতে ১৪০ জন পুলিশ সদস্যের জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা পদক লাভ

জাতিসংঘ শান্তিরক্ষার কাজে অসামান্য অবদান এবং পেশাদারিত্ব প্রদর্শনের জন্য মালির রাজধানী বামাকোতে বাংলাদেশ ফর্মড পুলিশ ইউনিট (এফপিইউ)-এর ১৪০ জন সদস্যকে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা পদকে ভূষিত...