সাম্প্রতিক শিরোনাম

আবারও নির্বাচনে লড়ার ইঙ্গিত দিলেন ট্রাম্প

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প আবারও প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে লড়তে পারেন বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন। তবে নতুন করে কোনো রাজনৈতিক দল গঠনের পরিকল্পনা নেই বলে জানিয়েছেন তিনি।

অর্থাৎ রিপাবলিকান পার্টির হয়েই নির্বাচনে লড়তে চান ট্রাম্প। স্থানীয় সময় গতকাল রবিবার ফ্লোরিডার অরল্যান্ডোর হায়াত রিজেন্সি হোটেলে রক্ষণশীলদের সম্মেলনে ট্রাম্প একথা জানান।

তিন দিনব্যাপী এই সম্মেলনে রিপাবলিকান পার্টির রক্ষণশীল নেতারা বক্তব্য দেন। বক্তব্য দেন ট্রাম্পের ছেলে ট্রাম্প জুনিয়রও। জো বাইডেনের ক্ষমতা গ্রহণের পর প্রথম বারের মতো এমন সম্মেলনে এলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। এ সময় উত্তরসূরী বাইডেনের সমালোচনা করে ট্রাম্প বলেন, যুক্তরাষ্ট্র ‘আমেরিকাই প্রথম’ নীতি থেকে ‘আমেরিকাই শেষ’ নীতিতে পৌঁছেছে। সম্মেলনে ২০২৪ সালের নির্বাচন নিয়ে পরিকল্পনার কথাও বলেন তিনি।

রবিবার কনজারভেটিভ পলিটিক্যাল অ্যাকশন কনফারেন্সের (সিপ্যাক) মঞ্চে ট্রাম্পকে পেয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন রিপাবলিকান পার্টির কর্মীরা। ‘ট্রাম্প, ট্রাম্প’ বলে স্লোগান দেন তারা। মঞ্চে প্রায় এক ঘণ্টা অবস্থান করেন এ সাবেক প্রেসিডেন্ট।

মঞ্চে দেওয়া বক্তব্যে ট্রাম্প বলেন, আমি আজ আপনাদের সামনে উপস্থিত হয়ে ঘোষণা করছি, চার বছর আগে আমরা একসঙ্গে যে অবিশ্বাস্য যাত্রা শুরু করেছিলাম, তা এখন অনেক দূরে সরে গেছে। আমরা এখানে সমবেত হয়েছি ভবিষ্যত নিয়ে কথা বলতে। আন্দোলন, দল এবং আমাদের ভালোবাসার দেশের ভবিষ্যত নিয়ে কথা বলতে এসেছি।

ট্রাম্প নতুন কোনো রাজনৈতিক দল গড়ার পরিকল্পনার কথা প্রত্যাখ্যান করেন। এই সংবাদকে ট্রাম্প ভুয়া সংবাদ’ আখ্যা দিয়ে বিষয়টিকে গুজব বলে উড়িয়ে দেন।

কৌতুকের সুরে তিনি বলেন, কী, দুর্দান্ত হবে না? যদি আমরা নতুন দল গঠন করে ভোট ভাগাভাগি করে নিই, আর যদি কখনই জিততে না পারি? আমাদের রিপাবলিকান পার্টি আছে, এটাই আগের যেকোনো সময়ের চেয়ে শক্তিশালী হবে।

গত ৩ নভেম্বরের নির্বাচনে পরাজিত হয়ে নানা নাটকীয়তার জন্ম দেন ট্রাম্প। সে সময় নতুন রাজনৈতিক দল গড়ারও ইঙ্গিত দেন তিনি। ট্রাম্পের আহ্বানে সাড়া দিয়ে ক্যাপিটল হিলে বিক্ষোভে অংশ নিতে গিয়ে নিহত হন বেশ কয়েকজন। অবশেষে ২০ জানুয়ারি ক্ষমতা থেকে বিদায় নেন তিনি।

সর্বশেষ

ঈশ্বরদীতেও দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৭.৮ ডিগ্রি

পাবনার ঈশ্বরদীতে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। শুরু হয়েছে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ। ঘন কুয়াশা ও হিমেল বাতাসে বিপর্যস্ত হয়ে হয়ে পড়েছে জনজীবন।বুধবার (১১ জানুয়ারি)...

আফগানিস্তানে অন্তর্ভূক্তিমূলক আর্থ-সামাজিক অগ্রগতি দেখতে চায় বাংলাদেশ

প্রতিবেশী হিসেবে বাংলাদেশ আফগানিস্তানে অন্তর্ভুক্তিমূলক আর্থ-সামাজিক অগ্রগতি দেখতে চায়, যেখানে আফগান জনগণ তাদের উন্নত জীবনের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে পারে। সম্প্রতি আফগানিস্তানের উচ্চ শিক্ষা এবং...

গণতন্ত্রের নামে বাংলাদেশে অন্য রাষ্ট্রের হস্তক্ষেপের সুযোগ নেই বলছে রাশিয়া

গণতন্ত্রের অজুহাত দিয়ে বাংলাদেশ কিংবা অন্য কোনো দেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে বাইরের কারো হস্তক্ষেপ করার সুযোগ নেই। কোনো রাষ্ট্রে স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বের সুরক্ষায় জাতিসংঘের ঘোষণায়...

র‍্যাবের উপর নিষেধাজ্ঞা দেয়া হবেনা, লবিষ্টকে জেরার আপিল করতে পারবে বাংলাদেশ

যুক্তরাষ্ট্র এবং যুক্তরাজ্যে র‍্যাবের কার্যক্রমে নিষেধাজ্ঞা আরোপের ব্যপারে শক্তিশালী লবিস্ট নিয়োগ করা হলেও সে পদক্ষেপ ভেস্তে গিয়েছে।এরই মধ্যে র‍্যাপিড একশন ব্যাটালিয়ন-র‍্যাবের ব্যপারে নিষেধাজ্ঞার আবেদন...