ট্রাম্পের সুস্থতা কামনা করতে গিয়ে নিজের জীবনটাই খুইয়ে বসেছেন ভারতের এক কৃষক

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। যিনি এর আগ পর্যন্ত করোনাবিধি এবং মাস্ক পরা নিয়ে হাসি-তামাশা করতেন। প্রতিবেশী দেশ ভারতে আবার ট্রাম্পের বড়সংখ্যক ভক্ত আছে।

তাই তাঁর অসুস্থতার খবরে সেখানে অনেকেই বিভিন্নভাবে প্রার্থনা করেছেন। তবে ট্রাম্পের সুস্থতা কামনা করতে গিয়ে নিজের জীবনটাই খুইয়ে বসেছেন ভারতের এক কৃষক। গত ১১ অক্টোবর তাঁর মৃত্যু হয়েছে।

তেলেঙ্গানা রাজ্যের কোনি গ্রামের বাসিন্দা ওই ভারতীয় কৃষকের নাম বুসসা কৃষ্ণ। ট্রাম্প করোনায় সংক্রমিত হওয়ায় তিনি বেশ উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছিলেন। চিন্তায় রাতে নাকি ঘুমাতেও পারতেন না।

এরপর ৩৫ বছর বয়সী এই যুবক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সুস্থতা কামনায় টানা চার দিন ধরে উপবাস করেন। টানা উপবাসের কারণে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। গত ১১ অক্টোবর তাঁর হার্ট অ্যাটাক হয়। এরপর তাঁকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি।

ডোনাল্ড ট্রাম্পের অন্ধভক্ত কৃষ্ণ এর আগে তাঁর বাড়িতে ট্রাম্পের বিশাল মূর্তি স্থাপন করেছিলেন। নিজের নাম রেখেছিলেন ‘ট্রাম্প কৃষ্ণ’। কৃষ্ণের চাচাতো ভাই বিবেক বলেন, ট্রাম্প ও মেলানিয়া করোনায় সংক্রমিত হওয়ার খবরে কৃষ্ণ খুব ভেঙে পড়েছিলেন।

খুব কান্নাকাটি করতেন। তাঁর স্বাস্থ্য ভালো ছিল। আগে থেকে কোনো শারীরিক জটিলতা ছিল না। কৃষ্ণের গ্রামের একজন প্রধান বলেছেন, ‘ট্রাম্পের সঙ্গে সাক্ষাৎ না হয়েই আমাদের ট্রাম্প কৃষ্ণের মৃত্যু মেনে নিতে পারছি না। এই খবরটি যেন ট্রাম্প জানতে পারেন।

সর্বশেষ

সামরিক সম্পর্ক জোরদারে তুরস্ক সফরে বাংলাদেশ সশস্ত্রবাহিনীর প্রতিনিধিদল

ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ শামীম কামাল এর নেতৃত্বে Armed force war course 2022 এর ২৬ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল Overseas study tour (OST) এ তুরস্ক...

নিরাপত্তা পরিষদে মায়ানমার ইস্যুতে বাংলাদেশকে সমর্থন দেবে যুক্তরাজ্য

রাখাইন রাজ্যে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সঙ্গে আরাকান আর্মির লড়াইয়ের জেরে দুই দেশের সীমান্তের উদ্ভূত পরিস্থিতি নিরসনে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সহযোগিতা চেয়েছে বাংলাদেশ। এরই ধারাবাহিকতায় যুক্তরাজ্য বলেছে,...

কাউকে কাউন্ট করি না, আমরা সবসময় প্রস্তুত: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশের ভূখণ্ডে বারবার মর্টারের গোলা পড়ার ঘটনার প্রেক্ষাপটে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন...

মেয়েদের জন্য দাঁড়িয়ে পথে পথে চেনা মুখগুলি

মঙ্গলবারেই জানানো হয় বিমানবন্দর থেকে বনানী- মহাখালী- বিজয় সরণী হয়ে সাত রাস্তা-মগবাজার হয়ে বাফুফে যাবে মেয়েরা। সেই অনুযায়ী যার যার মতো করে দাঁড়িয়েছিলেন সবাই।...