সাম্প্রতিক শিরোনাম

জাতীয় চার নেতা ত্যাগের মহিমার অনন্য নজির সৃষ্টি করে গেছেন: মেয়র তাপস

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, জাতীয় চার নেতা ত্যাগের মহিমার অনন্য নজির সৃষ্টি করে গেছেন।

hiastock

মঙ্গলবার রাজধানীর বনানী কবরস্থানে জাতীয় চার নেতা এবং ১৫ আগস্ট কালরাতে শাহাদাতবরণকারী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পরিবারের সদস্যদের কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণের পর সাংবাদিকদের এ কথা বলেন।

ডিএসসিসি মেয়র বলেন, জাতীয় চার নেতা অসীম সাহসিকতা ও গভীর একাগ্রতায় সারা জীবন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে এ দেশের স্বাধীনতার জন্য নিজেদের ত্যাগ করে গেছেন।

গুগল এডস

১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট জাতির পিতাকে সপরিবারে হত্যার পর চার নেতা অপরিসীম সাহসিকতার পরিচয় দিয়ে এবং অন্যায়ের বিরুদ্ধে মাথা নত না করে নিজেদের জীবন বিলিয়ে দিয়েছেন।

এর মাধ্যমে পৃথিবীর ইতিহাসে ত্যাগের মহিমার অনন্য নজির সৃষ্টি করে গেছেন তাঁরা।

ব্যারিস্টার শেখ তাপস বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতীয় চার নেতার ত্যাগকে শক্তিতে রূপান্তরিত করে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিয়ে চলেছেন।

আজ তারা জীবিত থাকলে দেখতেন, শেখ হাসিনা তাঁদের স্বাধীন করা দেশকে পৃথিবীর ইতিহাসে মর্যাদাশীল দেশ হিসেবে পরিণত করেছেন।

জাতীয় চার নেতার রুহের মাগফেরাত কামনা করে ডিএসসিসি মেয়র বলেন, শুধু বঙ্গবন্ধুর প্রতি তাঁদের গভীর আনুগত্যের জন্যই ১৯৭৫ সালের এই দিনে জাতীয় চার নেতাকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। এই দিনটি বাঙালি জাতির জন্য একটি কলঙ্কময় দিন।

পরে ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের ব্যানারে ধানমণ্ডির ৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করেন।

শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণের পর বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্যসচিব ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস সাংবাদিকদের বলেন, জাতীয় চার নেতা ত্যাগের মহিমার যে নজির সৃষ্টি করে গেছেন, তা আমাদের চলার পথের পাথেয়।

মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী মোরশেদ হোসেন কামাল, এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের নেতারাও উপস্থিত ছিলেন।

সর্বশেষ খবর

জনপ্রিয় খবর

hiastock