সাম্প্রতিক শিরোনাম

দেশের মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাত্রার গ্যারান্টি চাই, স্বাভাবিক মৃত্যুর গ্যারান্টি চাই: মির্জা আব্বাস

বিএনপি দেশের মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাপনের নিশ্চয়তা চায় দাবি করে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস বলেছেন, কথা বলার অধিকার চাই।

দেশের মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাত্রার গ্যারান্টি চাই। স্বাভাবিক মৃত্যুর গ্যারান্টি চাই। শুধু এতোটুকু কথা বলার জন্য আজকে এখানে এসেছি।

জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে লেখক সাংবাদিক মুশতাক আহমেদ এবং সাংবাদিক বোরহান উদ্দিন মুজাক্কির হত্যার প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশ প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

মির্জা আব্বাস বলেন, আমরা আজকে একটা প্রতিবাদ সভা করছি। প্রতিবাদ সভা কিসের জন্য? আমরা আমাদের কথা বলার অধিকার চাই। আমাদের স্বাধীকার চাই। দেশের মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাত্রার গ্যারান্টি চাই। আমরা স্বাভাবিক মৃত্যুর গ্যারান্টি চাই।

সরকারের কাছে প্রশ্ন রেখে তিনি বলেন, এত ভয় কিসের? কাকে এত ভয়? যাকে ভয় পাবেন, তাকে ইতোমধ্যেই গ্রেপ্তার করে আটকে রেখেছেন, তিনি হলেন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া। যাকে ভয় পাচ্ছেন সে তারেক রহমান। তিনি বিদেশে প্রবাসে আছেন।

যাকে ভয় পাচ্ছেন তিনি শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান। তিনি আমাদের মাঝে নেই। তবুও আপনাদের মাঝে কেন এত ভয়। আমি বুঝতে পারি না।

কী জন্য এত ভয়? খালেদা জিয়া যদি জেলের বাইরে থাকত দেশের চেহারা এমন হতো না। তারেক রহমান যেদিন ফেরত আসবেন, দেশের চেহারা অনেক ভালো হবে ইনশাআল্লাহ।

জিয়াউর রহমান মানুষের কথা বলার অধিকার ফিরিয়ে দিয়েছিলেন দাবি করে বিএনপির এ নেতা বলেন, ‘বহুদলীয় গণতন্ত্র দিয়েছে জিয়াউর রহমান। সংবাদপত্রের কথা বলার সুযোগ দিয়েছে দেশনেত্রী খালেদা জিয়া। আমার সামনে অনেক সাংবাদিক ভাইয়েরা আছেন।

এত সাংবাদিকদের চাকরি হওয়ার কথা না। বাকশাল থেকে বের করে এনে আওয়ামী লীগের জন্ম ও সংবাদপত্রের স্বাধীনতা দিয়েছে এই বিএনপি। তার ফলে আজকে হাজার হাজার সংবাদপত্র। হাজার হাজার পত্রিকা, শত শত হাজার হাজার লেখক, কলামিস্ট।

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রেস ক্লাবের অডিটোরিয়ামের একটি প্রোগ্রামে আমি বলেছিলাম কিশোরসহ আরো কয়েকজন সাংবাদিক আটক আছেন‌।

এদের ডিজিটাল আইনের জন্য আটকানো আছে। কিসের ডিজিটাল আইন? ডিজিটাল বাংলাদেশ বলেন ভালো কথা। ডিজিটাল আইনটা কিসের? ডিজিটাল অ্যাক্টে আইনে আমাদের জেলে যেতে হবে। আমরা কথাই বলতে পারবো না।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আরও শক্তি সঞ্চয় করতে হবে। স্বৈরাচার আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে। আমরা একজন একজন করে লক্ষ কোটি লোকারণ্য হয়ে স্বৈরাচারী এই সরকারের পতন ঘটাবো।

যুবদলের গত সভা থেকে যুবদলের নেতা-কর্মীদের গ্রেফতার করা হয়েছে। আমাদের বহু নেতাকে গ্রেফতার করে কারাগারে দিয়েছে। কারাবন্দিদের মুক্তি চাই না। আমরা সমস্ত কারাবন্দিদেরকে মুক্তি করব ইনশাল্লাহ।

স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় কমিটির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মুস্তাফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক আবদুল কাদের ভূঁইয়া জুয়েলের সঞ্চালনায় আরও বক্তব্য দেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, দলের যুগ্ন মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি গোলাম সারওয়ার, আসাদুজ্জামান নেছার প্রমুখ।

সর্বশেষ

ঈশ্বরদীতেও দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৭.৮ ডিগ্রি

পাবনার ঈশ্বরদীতে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। শুরু হয়েছে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ। ঘন কুয়াশা ও হিমেল বাতাসে বিপর্যস্ত হয়ে হয়ে পড়েছে জনজীবন।বুধবার (১১ জানুয়ারি)...

আফগানিস্তানে অন্তর্ভূক্তিমূলক আর্থ-সামাজিক অগ্রগতি দেখতে চায় বাংলাদেশ

প্রতিবেশী হিসেবে বাংলাদেশ আফগানিস্তানে অন্তর্ভুক্তিমূলক আর্থ-সামাজিক অগ্রগতি দেখতে চায়, যেখানে আফগান জনগণ তাদের উন্নত জীবনের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে পারে। সম্প্রতি আফগানিস্তানের উচ্চ শিক্ষা এবং...

গণতন্ত্রের নামে বাংলাদেশে অন্য রাষ্ট্রের হস্তক্ষেপের সুযোগ নেই বলছে রাশিয়া

গণতন্ত্রের অজুহাত দিয়ে বাংলাদেশ কিংবা অন্য কোনো দেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে বাইরের কারো হস্তক্ষেপ করার সুযোগ নেই। কোনো রাষ্ট্রে স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বের সুরক্ষায় জাতিসংঘের ঘোষণায়...

র‍্যাবের উপর নিষেধাজ্ঞা দেয়া হবেনা, লবিষ্টকে জেরার আপিল করতে পারবে বাংলাদেশ

যুক্তরাষ্ট্র এবং যুক্তরাজ্যে র‍্যাবের কার্যক্রমে নিষেধাজ্ঞা আরোপের ব্যপারে শক্তিশালী লবিস্ট নিয়োগ করা হলেও সে পদক্ষেপ ভেস্তে গিয়েছে।এরই মধ্যে র‍্যাপিড একশন ব্যাটালিয়ন-র‍্যাবের ব্যপারে নিষেধাজ্ঞার আবেদন...