প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দলের চেয়ারম্যান ফেরদৌস আহমেদ কোরেশী মারা গেছেন

প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দলের (পিডিপি) চেয়ারম্যান ডাকসুর সাবেক ভিপি ফেরদৌস আহমেদ কোরেশী মারা গেছেন। সোমবার দুপুর দেড়টার দিকে ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট এলাকায় মেয়ের বাসায় এই রাজনীতিবিদের মৃত্যু হয়। তার বয়স হয়েছিলো ৭৮ বছর।

তার স্ত্রী নিলুফার পান্না কোরেশী বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “২০১৫ সালের অক্টোবরে একবার ‘স্ট্রোক’ করার পর থেকেই একরকম অসুস্থ জীবনের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছিলেন। আজ দুপুরে আবার ‘স্ট্রোক’ করার পর আর বাঁচানো যায়নি।”
ফেরদৌস আহমেদ কোরেশী দুই মেয়ে ও এক ছেলে রেখে গেছেন। সোমবার আসরের পর জাতীয় প্রেস ক্লাবে জানাজা শেষে ফেনীর দাগুনভুঁইয়ায় গ্রামের বাড়িতে পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে বলে পরিবারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

ষাটের দশকে অবিভক্ত পাকিস্তান ছাত্রলীগের সভাপতি ছিলেন কোরেশী। ১৯৬১ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি নির্বাচিত হন তিনি। ছয় দফা আন্দোলন ও ১১ দফা ভিত্তিক ছাত্র ও গণআন্দোল, ৬৯ এর গণঅভ্যুত্থানে ফেরদৌস আহমেদ কোরেশী ছিলেন সামনের কাতারে।

একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে মুক্তাঞ্চল থেকে মুক্তিযুদ্ধের মূখপাত্র হিসেবে দেশবাংলা পত্রিকা প্রকাশিত হত তারই সম্পাদনায়। ১৯৭৮ সালে বিএনপি গঠিত হওয়ার পর ফেরদৌস আহমেদ কোরেশী প্রথম যুগ্ম মহাসচিব হন। ২০০৭ সালে সেনা সমর্থিত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সময় তিনি প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক পার্টি (পিডিপি) গঠন করেন।

সর্বশেষ

সামরিক সম্পর্ক জোরদারে তুরস্ক সফরে বাংলাদেশ সশস্ত্রবাহিনীর প্রতিনিধিদল

ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ শামীম কামাল এর নেতৃত্বে Armed force war course 2022 এর ২৬ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল Overseas study tour (OST) এ তুরস্ক...

নিরাপত্তা পরিষদে মায়ানমার ইস্যুতে বাংলাদেশকে সমর্থন দেবে যুক্তরাজ্য

রাখাইন রাজ্যে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর সঙ্গে আরাকান আর্মির লড়াইয়ের জেরে দুই দেশের সীমান্তের উদ্ভূত পরিস্থিতি নিরসনে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সহযোগিতা চেয়েছে বাংলাদেশ। এরই ধারাবাহিকতায় যুক্তরাজ্য বলেছে,...

কাউকে কাউন্ট করি না, আমরা সবসময় প্রস্তুত: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশের ভূখণ্ডে বারবার মর্টারের গোলা পড়ার ঘটনার প্রেক্ষাপটে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন...

মেয়েদের জন্য দাঁড়িয়ে পথে পথে চেনা মুখগুলি

মঙ্গলবারেই জানানো হয় বিমানবন্দর থেকে বনানী- মহাখালী- বিজয় সরণী হয়ে সাত রাস্তা-মগবাজার হয়ে বাফুফে যাবে মেয়েরা। সেই অনুযায়ী যার যার মতো করে দাঁড়িয়েছিলেন সবাই।...