সাম্প্রতিক শিরোনাম

দেশের অর্থনীতি নিয়ে কিছু অর্থনীতিবিদের মন্তব্য মনগড়া: নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী

করোনায় দেশের অর্থনীতি নিয়ে কিছু অর্থনীতিবিদ মনগড়া কথা বলছেন বলে মন্তব্য করেছেন নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী। তিনি বলেন, কিছু অর্থনীতিবিদ বলছেন, দেশের অর্থনীতি দুর্বল। অর্থনীতি যদি দুর্বল হয়ে যায় তাহলে কীভাবে মসজিদে-মন্দিরে টাকা দেওয়া হলো। করোনার সময়ে কীভাবে কোটি কোটি মানুষের কাছে ত্রাণ পৌঁছানো হলো। নগদ অর্থ দেওয়া হলো।

আজ শুক্রবার দুপুরে দিনাজপুর জেলার বিরলে কাঞ্চন নিউ মডেল ডিগ্রি কলেজের একাডেমিক ভবনের উদ্বোধন ও উপজেলা পরিষদ অডিটোরিয়ামে বিভিন্ন ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের মাঝে সরকারি অর্থ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মৌমাছি যেভাবে ভ্যান ভ্যান করে, সেভাবে কিছু অর্থনীতিবিদ অপেক্ষা করে, কখন টেলিভিশনের সামনে যাব। কখন সরকারবিরোধী কথা বলব। এগুলো মনগড়া, কাগজে লিখা থাকে, তৈরি করা। সারারাত জেগে এসব তৈরি করে, সারাদিন বলে বেড়ায়।

দেশরত্ন শেখ হাসিনা আজকে দাতাদের দিকে তাকিয়ে নেই। ৯০ ভাগ নিজস্ব অর্থে জাতীয় সংসদে উন্মুক্ত আলোচনার মধ্য দিয়ে বাজেট পাস হয়েছে। নিজস্ব অর্থে পদ্মা সেতু হচ্ছে। দেশের জনগণের অনুভূতি পদ্মা সেতু। শেখ হাসিনা এ অনুভূতিকে ধারন করেন। আর এ অনুভূতির বিরুদ্ধে বিশ্বব্যাংক ও খালেদা জিয়া দাঁড়িয়েছিল। আজকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সততা ও সাহসিকতার সামনে বিশ্বব্যাংক আত্মসমর্পণ করেছে।

অর্থনীতি ভালো বলেই সরকার করোনা সময়ে বিভিন্ন প্যাকেজ ঘোষণা করেছে। ভূমিহীন কৃষকের জন্য ঋণের ব্যবস্থা করেছে। ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য বিনামূল্যে বই বিতরণ করছে। উপবৃত্তির ব্যবস্থা করা হয়েছে। মসজিদ-মন্দিরে উন্নয়ন হচ্ছে। এ উন্নয়ন টেকনাফ থেকে তেতুলিয়া চলমান আছে।

কিছু অর্থনীতিবিদদের এমন বক্তব্যে তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে নৌ প্রতিমন্ত্রী বলেন, ধ্বংস বাংলাদেশ হয় নাই। বাংলাদেশের অর্থনীতি ধ্বংস হয় নাই। ধ্বংস হয়েছে দেশবিরোধী চক্র। তারা আস্তে আস্তে নির্মূল হয়ে যাবে। এ অপশক্তি বাংলাদেশে থাকবে না।

দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে বলেই অপরাধীদের আইনের আওতায় আনা হচ্ছে মন্তব্য করে খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, হাসপাতালের ভুল চিকিৎসার জন্য সাহেদদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

তিনি বলেন, এরা আওয়ামী লীগে অনুপ্রবেশ করে আওয়ামী লীগের ইমেজ নষ্ট করার চেষ্টা করেছে। আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন গণ্যমান্য ব্যাক্তিদের সঙ্গে ছবি তোলে তাদের সুনাম নষ্ট করার চেষ্টা করেছে। এসব অপরাধীরা কিন্তু ছাড় পাচ্ছে না। তাকে (সাহেদ) আইনের আওতায় আনা হয়েছে। এবং তার বিচার বাংলার মাটিতে হবে। আইন যে ভাঙবে, তাকেই আইনের আওতায় আনা হবে। এটাই হচ্ছে শেখ হাসিনার বাংলাদেশ।

অথচ আমরা যখন এসব অপরাধীদের ধরছি, তখন একটি মহল অপরাধীর বিষয়ে কথা না বলে, সরকারের বিরুদ্ধে কথা বলে যাচ্ছে। এ সংকটকালে সবাইকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ থেকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখার আহ্বান জানান তিনি।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিস্ময়কর ও সাহসী নেতৃত্বের প্রসঙ্গ টেনে প্রতিমন্ত্রী বলেন, বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম দেশরত্ন শেখ হাসিনাকে তৃতীয় বিশ্বের সাহসী ও বিস্ময়কর নেতৃত্ব বলে অভিহিত করেছে। প্রধানমন্ত্রীর মানবিকতার কথা তুলে ধরে খালিদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী মানবিক বলেই আজকে তার নির্বাহী আদেশে, দুর্নীতির দায়ে জেলে থাকা খালেদা জিয়া মুক্ত হয়েছে।

সরকার দেশপ্রেমিক শক্তিশালী বিরোধী দল চায় জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা শক্তিশালী বিরোধী দল চাই। যাদের দেশপ্রেম থাকবে। আমরা বাংলাদেশে শক্তিশালী কোনো দেশবিরোধী দল চাই না। এটা বাংলাদেশের মানুষের সেন্টিমেন্ট।

এদিন প্রতিমন্ত্রী দিনাজপুর-বোচাগঞ্জ আর এইচ ডি হতে মহাদেবপুর পর্যন্ত পাকা রাস্তা উদ্বোধন করেন।  বিরল উপজেলায় বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচির আওতায় ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে বাইসাইকেল, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও ক্লাবে ফুটবল, প্রতিবন্ধীদের মাঝে হুইল চেয়ার এবং খামারিদের মাঝে ঔষধ বিতরণ করেন। পরে জগতপুর ডিগ্রি কলেজ, শংকরপুর দাখিল মাদরাসা ও শামসুন্নাহার দাখিল মাদরাসায় কম্পিউটার বিতরণ করেন।

এ সময় প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জিনাত রহমান, উপজেলা চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান বাবু, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রমাকান্ত রায় উপস্থিত ছিলেন।

সর্বশেষ

ঈশ্বরদীতেও দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৭.৮ ডিগ্রি

পাবনার ঈশ্বরদীতে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। শুরু হয়েছে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ। ঘন কুয়াশা ও হিমেল বাতাসে বিপর্যস্ত হয়ে হয়ে পড়েছে জনজীবন।বুধবার (১১ জানুয়ারি)...

আফগানিস্তানে অন্তর্ভূক্তিমূলক আর্থ-সামাজিক অগ্রগতি দেখতে চায় বাংলাদেশ

প্রতিবেশী হিসেবে বাংলাদেশ আফগানিস্তানে অন্তর্ভুক্তিমূলক আর্থ-সামাজিক অগ্রগতি দেখতে চায়, যেখানে আফগান জনগণ তাদের উন্নত জীবনের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে পারে। সম্প্রতি আফগানিস্তানের উচ্চ শিক্ষা এবং...

গণতন্ত্রের নামে বাংলাদেশে অন্য রাষ্ট্রের হস্তক্ষেপের সুযোগ নেই বলছে রাশিয়া

গণতন্ত্রের অজুহাত দিয়ে বাংলাদেশ কিংবা অন্য কোনো দেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে বাইরের কারো হস্তক্ষেপ করার সুযোগ নেই। কোনো রাষ্ট্রে স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বের সুরক্ষায় জাতিসংঘের ঘোষণায়...

র‍্যাবের উপর নিষেধাজ্ঞা দেয়া হবেনা, লবিষ্টকে জেরার আপিল করতে পারবে বাংলাদেশ

যুক্তরাষ্ট্র এবং যুক্তরাজ্যে র‍্যাবের কার্যক্রমে নিষেধাজ্ঞা আরোপের ব্যপারে শক্তিশালী লবিস্ট নিয়োগ করা হলেও সে পদক্ষেপ ভেস্তে গিয়েছে।এরই মধ্যে র‍্যাপিড একশন ব্যাটালিয়ন-র‍্যাবের ব্যপারে নিষেধাজ্ঞার আবেদন...